ভাবির সঙ্গে পরকীয়ায় যুবক, আত্মহত্যার চেষ্টায় তার স্ত্রী ও বড়ভাই

  বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি

১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২০:২৬ | অনলাইন সংস্করণ

রাজশাহীর বাঘা উপজেলায় বড়ভাইয়ের স্ত্রীর সঙ্গে পরকীরার অভিযোগ উঠেছে জনি আহম্মেদ নামের এক যুবকের। এ ঘটনার জের ধরে জনির স্ত্রী ও বড়ভাই আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে বাঘার তেঁথুলিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

জনি আহম্মেদের স্ত্রী স্মৃতি খাতুন ও বড়ভাই আবদুল লতিফ এখন বাঘা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি রয়েছেন।

জানা গেছে, আবদুল লতিফের স্ত্রী লাকি খাতুনের সঙ্গে জনি আহম্মেদের দীর্ঘ দিন ধরে পরকীয়া চলছিল। বিষয়টি জানাজানি হলে তাদের দুই পরিবারের মধ্যে অশান্তির সৃষ্টি হয়। এর জের ধরে জনির স্ত্রী স্মৃতি খাতুনের সঙ্গে লাকি খাতুনের ঝগড়া হয়। একপর্যায়ে অভিমান করে লতিফ ও তার ছোটভাই জনির স্ত্রী স্মৃতি খাতুন বিষপান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। পরে তাদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ বিষয়ে বাঘা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক রায়হান হোসেন বলেন, ‘উভয়ের (লতিফ ও স্মৃতি) মুখে পাইপ দিয়ে বিষ বের করা হয়েছে। আপতত তারা বিপদমুক্ত। তবে তাদের ৪৮ ঘণ্টা পরিচর্যায় রাখা হয়েছে।’

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে