পড়তে না বসায় মায়ের বকুনি, অভিমানে জেডিসি পরীক্ষার্থীর আত্মহত্যা

  চৌগাছা (যশোর) প্রতিনিধি

০৮ নভেম্বর ২০১৮, ১২:০৩ | অনলাইন সংস্করণ

পড়তে না বসায় মায়ের বকুনি খেয়ে অভিমানে ফ্যানের সঙ্গে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে যশোরের চৌগাছা উপজেলার এক জেডিসি পরীক্ষার্থী। গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় উপজেলার গুয়াতলী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত শারমিন (১৪) ওই গ্রামের শফিকুল ইসলামের মেয়ে। সে একই গ্রামের গুয়াতলী মাকানুচ্ছুন্নাহ দাখিল মাদ্রাসা থেকে জেডিসি পরীক্ষা দিচ্ছিল।

গুয়াতলী মাকানুচ্ছুন্নাহ দাখিল মাদ্রাসার সুপার মাওলানা বাকী বিল্লাহ জানান, ছাত্রীটি খুবই মেধাবী ছিল। ৫ নভেম্বরও পরীক্ষায় অংশ নেয় এবং আজ বৃহস্পতিবার গণিত পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার কথা ছিল। গতকাল সন্ধ্যায় মেয়েটির মা জামেনা খাতুনসহ পরিবারের সদস্যরা লেখাপড়া করতে বকাঝকা করে। শুনেছি ওই সময় শারমিন টিভি দেখছিল। এতে সে অভিমানে নিজের ঘরে ঢুকে ফ্যানের সঙ্গে গলায় রশি দিয়ে আত্মহত্যা করে।

চৌগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রিফাত খান রাজিব ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ঘরের দরজাটা মজবুত হওয়ায় পরিবারের সদস্যদের সেটি ভেঙে ফেলতে একটু সময় লাগে। এই সময়ের মধ্যেই ওই ছাত্রীর মৃত্যু হয়।

পরিবারের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ময়নাতদন্ত ছাড়াই শারমিনের মরদেহ দাফন করার অনুমতি দেওয়া হয় বলেও জানান ওসি।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে