আমি গ্রেপ্তার হলে সবাইকে জেলে যেতে হবে: দিলদার

  নিজস্ব প্রতিবেদক

১৭ মে ২০১৭, ১৯:৫৫ | আপডেট : ১৭ মে ২০১৭, ২০:০২ | অনলাইন সংস্করণ

দিলদার আহমেদ সেলিম

‘ধর্ষকের’ পিতা আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার আহমেদ সেলিম বলেছেন, আমাদের ব্যবসা বৈধ। এরপরও আমাকে যদি ডার্টি মানি (কালো টাকা) ও স্বর্ণ চোরাচালানের জন্য গ্রেপ্তার করা হয়, তাহলে অন্য স্বর্ণ ব্যবসায়ী বাইরে কেন? তাদেরকেও জেলে যেতে হবে।

আজ বুধবার বিকেলে রাজধানীর কাকরাইলে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের কার্যালয় থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সময় সাংবাদিকদের কাছে এ বক্তব্য দেন তিনি।

তিনি বলেন, আমি যেভাবে ব্যবসা করছি, সারা বাংলাদেশে সেভাবে ব্যবসা চলছে। এরপরও যদি আমার স্বর্ণের দোকান বন্ধ করা হয় তাহলে সারাদেশের সকল দোকান বন্ধ করে দিতে হবে। আইনজীবী ও জুয়েলারি সমিতির সঙ্গে কথা বলে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

দিলদার আহমেদ বলেন, গত ৪০ বছর ধরে সততার সঙ্গে ব্যবসা করে আসছি। আমার কাছে অবৈধ জিনিস (স্বর্ণালঙ্কার) নাই। তবে শুল্ক গোয়েন্দাদের অধিকার রয়েছে আমাদের দোকান সার্চ করার। তারা আমাদের স্বর্ণ ও ডায়মন্ড জব্দ করেছে। আমরা পেপার্স শো (কাগজপত্র প্রদর্শন) করব।

আপনি তো স্বর্ণালঙ্কারের বৈধ কাগজপত্র দেখাতে পারেননি এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, তাৎক্ষণিকভাবে কেউ কী আর কাগজপত্র দেখাতে পারে? গত পাঁচ বছর ধরে কোনো স্বর্ণ আমদানি নেই। একটা ব্যবসা চললে তার নীতিমালা থাকা উচিত। কিন্তু বাংলাদেশে আমরা কোনো নীতিমালা করতে পারিনি।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে