সুদের হার কমানোর নির্দেশ বাংলাদেশ ব্যাংকের

  নিজস্ব প্রতিবেদক

৩০ মে ২০১৮, ১৭:২০ | অনলাইন সংস্করণ

সম্প্রতি সুদের হার বেড়েছে। এমনকি পুরাতন গ্রাহকদের ঋণের সুদের হারও বাড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। এতে উদ্বেগ প্রকাশ করে আজ বুধবার দুটি সার্কুলার জারি করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। 

বিদ্যমান ঋণের সুদ বাড়ানোর বিষয়ে বলা হয়েছে, কোনো ঋণের মঞ্জুরীপত্রে সুদ অপরিবর্তনশীল লেখা থাকলে ওই ঋণের বিপরীতে সুদের হার বাড়ানো যাবে না। তবে পরিবর্তনশীল লেখা থাকলে বছরে সর্বোচ্চ এক বার সুদ হার বাড়ানো যাবে।

মেয়াদী ঋণের ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ দশমিক ৫০ শতাংশ এবং চলতি ঋণের ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ এক শতাংশ প্রতিবার বাড়ানো যাবে। তবে সুদ হার বাড়ানোর আগে কমপক্ষে তিন মাস আগে গ্রাহককে অবহিত করতে হবে। 

এদিকে আরেকটি সার্কুলারে বাংলাদেশ ব্যাংক উল্লেখ  করেছে, সম্প্রতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে যে, ব্যাংকগুলো বিভিন্ন প্রকার ঋণের সুদহার ক্রমাগতভাবে বৃদ্ধি করছে। ঋণের সুদহার অযৌক্তিক মাত্রায় বৃদ্ধি করা হচ্ছে যা উদ্বেগজনক। এ পরিপ্রেক্ষিতে উৎপাদনশীল খাতসহ বিভিন্ন খাতে ঋণের সুদহার যৌক্তিক পর্যায়ে নির্ধারণের লক্ষ্যে ক্রেডিট কার্ড ও ভোক্তাঋণ ছাড়া অন্যান্য খাতে ঋণ এবং আমানতের গড়ভারিত সুদ হারের ব্যবধান বা স্প্রেড চার শতাংশের মধ্যে সীমিত রাখার জন্য আপনাদেরকে নির্দেশনা দেওয়া যাচ্ছে। আগে নির্দেশিত স্প্রেডের পরিমান ছিল পাঁচ শতাংশ। 

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে