জবির ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্ন ফাঁস,আটক ২

  জবি প্রতিবেদক

১৩ অক্টোবর ২০১৭, ১৯:১৬ | অনলাইন সংস্করণ

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের ‘এ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার ১ ঘন্টা আগে প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে পরীক্ষার শুরুর আগে প্রশ্নফাঁসের সাথে জড়িত থাকার অপরাধে দুই জনকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হলেন আয়শা আক্তার সোহা (রোল-১০৫৯১৮) এবং শাখাওয়াত হোসাইন (রোল-১০৬৯৭৭)।

জানা যায়, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষার ১ ঘন্টা আগে ভর্তি পরীক্ষার কেন্দ্রগুলোর বাইরে ভর্তিচ্ছু পরীক্ষার্থীদের মোবাইলে কিছু একটা পড়তে দেখা যায়। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত সাংবাদিকদের সন্দেহ হলে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহনকারী মেহেদী হাসান মিতুল (রোল-১০৮২৬৮) ও নাজমুল হাসানের (রোল-১০৫৩১৭) কাছ থেকে মোবাইল নিয়ে সেখানে উত্তরপত্র দেখতে পাওয়া যায়। এসময় তাদের কাছ থেকে উত্তরপত্রটির ও প্রবেশ পত্রের ছবি তুলে নিয়ে তাদের প্রক্টর অফিসে নিয়ে আসতে চাইলে নিজেকে যুবলীগ নেতা পরিচয় দানকারী কয়েকজন বাধা দেন।

পরীক্ষা শেষে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড.নূর মোহাম্মদ উত্তরপত্রটির সাথে পরীক্ষার প্রশ্নপত্রের হুবহু মিল পান। এদিকে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকে পরীক্ষার আগে ২ পরীক্ষার্থীর মোবাইলে উত্তরপত্র পাওয়া গেলে তাদের আটক করা হয়। এদের মধ্যে আয়শা আক্তার সোহার মোবাইলের ফেসবুক মেসেঞ্জারে ২টা বেজে ২৮ মিনিটে উত্তরপত্র পাঠানোর প্রমান পাওয়া যায়। এ উত্তরপত্রের সাথে পরীক্ষার প্রশ্নের হুবহু মিল পাওয়া গেছে।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর ড.নূর মোহাম্মদ জানান, ভ্রাম্যমান আদালতের ম্যাজিস্টেট রুনা লাইলা আটককৃত দুই পরীক্ষার্থীর পরীক্ষা বাতিল করেন। তাদের পরীক্ষার হলের বাইরে সাজেশনসহ আটক করায় পরীক্ষা বাতিল করা হয়েছে। এছাড়া আটক না হওয়া মেহেদী হাসান মিতুল ও নাজমুল হাসানের পরীক্ষা বিজ্ঞান অনুষদের ডিনের মাধ্যমে বাতিল করা হবে।

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে