• অারও

‘বর্ষাকাল শুরুর আগেই প্রকল্পের কাজ শেষ করা উচিত’

  বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

১০ মে ২০১৮, ১৯:২৬ | আপডেট : ১০ মে ২০১৮, ১৯:৩১ | অনলাইন সংস্করণ

‘টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা ভিত্তিক বাজেট : সামাজিক খাত কেন্দ্রিক পরিকল্পনা ও প্রস্তাবনা’ শীর্ষক প্রাক-বাজেট আলোচনায় বক্তব্য দেন ঢাবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান। ছবি : আমাদের সময়

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেছেন, ‘বর্ষাকাল শুরুর আগেই প্রকল্পের কাজ শেষ করা উচিত। আমাদের দেশে অর্থবছরের শুরুর দিকে প্রকল্প বাস্তবায়নের ধীর গতি থাকে এবং অর্থবছরের শেষের দিকে প্রকল্প বাস্তবায়নের হিড়িক পড়ে।’

উপাচার্য আরও বলেন, ‘এতে জাতীয় অর্থের ব্যাপক অপচয় ঘটে। প্রকল্পের সঠিক মানও বজায় রাখা যায় না।’ এ অবস্থা থেকে উত্তরণের লক্ষ্যে তিনি অর্থবছরের সময়সীমা  পুননির্ধারণের আহ্বান জানান।

আজ বৃহস্পতিবার মুজাফ্ফর আহমেদ চৌধুরী মিলনায়তনে ‘টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা ভিত্তিক বাজেট : সামাজিক খাত কেন্দ্রিক পরিকল্পনা ও প্রস্তাবনা’ শীর্ষক প্রাক-বাজেট আলোচনায় ঢাবির উপাচার্য এসব কথা বলেন।  ঢাবির সেন্টার অন বাজেট অ্যান্ড পলিসি এই আলোচনা সভার আয়োজন করে।

আলোচনা অনুষ্ঠানে অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান জাতীয় বাজেটের সুষ্ঠু বাস্তবায়ন ও অপচয়রোধে অর্থবছরের সময়সীমা জুলাই-জুনের পরিবর্তে জানুয়ারি-ডিসেম্বর অথবা এপ্রিল-মার্চ করার প্রস্তাব দিয়েছেন। এছাড়া শিক্ষা ও গবেষণা খাতে বাজেট বরাদ্দ বৃদ্ধির প্রস্তাব দেন। 

ঢাবির ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক ড. তৈয়েবুর রহমানের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কাজী রোজী এমপি। ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের চেয়ারম্যান ও সেন্টার অন বাজেট অ্যান্ড পলিসি-এর পরিচালক অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আবু ইউসুফ এবং অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. বজলুল হক খন্দকার মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

আলোচনায় অন্যান্যদের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন- অর্থনীতি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. শফিক উজ্ জামান, কমনওয়েলথ সচিবালয়ের আন্তর্জাতিক বাণিজ্য শাখার সাবেক প্রধান ড. এম এ রাজ্জাক, ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক ড. নিয়াজ আহমদ খান প্রমুখ।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে