সীমান্ত পার হওয়ায় ‘গর্ভবতী’ গরুর মৃত্যুদণ্ড!

  অনলাইন ডেস্ক

০৪ জুন ২০১৮, ২০:২৯ | আপডেট : ০৪ জুন ২০১৮, ২০:৩২ | অনলাইন সংস্করণ

ছবি : সংগৃহীত

ঘাস খেতে খেতে একটি গরু সীমান্ত পেরিয়ে গিয়েছিল পাশের দেশে। এই ভুলে তাকে মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়েছে। গরুর মালিক ইভান হারালামপিয়েভের দাবি, কয়েক সপ্তাহ পরেই গরুটি বাচ্চা প্রসব করত।  

ইন্ডিয়া টুডের এক খবরে বলা হচ্ছে, সম্প্রতি বুলগেরিয়ার সীমান্তবর্তী একটি গ্রামের মাঠে খাস খাচ্ছিল গরুটি। এভাবে গরুটি পাশের দেশ সার্বিয়ায় চলে যায়। কিছুক্ষণ পর আবার নিজের দেশে ফিরে আসে গরুটি। এই ‘অপরাধে’ ওই গরুর মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়।  

মৃত্যুদণ্ডের কারণ
বুলগেরিয়া ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশ হলেও সার্বিয়া নয়। ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোর ক্ষেত্রে কড়া নিয়ম, বাইরে থেকে সীমান্ত পেরিয়ে প্রবেশ করার সময় পশুটির স্বাস্থ্য যে ঠিকঠাক রয়েছে, তার নথি দাখিল করতে হয়। এ ক্ষেত্রে তার অন্যথা হওয়ায় ইউরোপীয় ইউনিয়নের পক্ষ থেকে গরুটির মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়। 

গরুর মৃত্যুদণ্ডের আদেশ শুনে মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছেন তার মালিক ইভান হারালামপিয়েভ। ঘটনাটির প্রতিবাদে ইউরোপিয়ান পার্লামেন্ট, কাউন্সিল অফ দি ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন এবং ইউরোপিয়ান কোর্ট অফ জাস্টিসে পিটিশন জমা দেওয়া হচ্ছে। একই সঙ্গে মানবিকতার সঙ্গে বিষয়টি পর্যালোচনা করার আবেদন জানাচ্ছে বুলগেরিয়ার বিপুল সংখ্যক সাধারণ মানুষ।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে
ashomoy-todays_most_viewed_news