sara

‘সত্য নাকি সাহস’ খেলায় প্রাণ গেল খেলোয়াড়ের

  অনলাইন ডেস্ক

১৪ নভেম্বর ২০১৮, ১১:৪৯ | অনলাইন সংস্করণ

‘সত্য নাকি সাহস’ খেলায় শামুক খেয়ে বিপদে পড়েছিলেন পাঁচ বন্ধুর মধ্যে একজন। পক্ষাঘাতগ্রস্ত হয়ে পড়েছিলেন। নষ্টও হয়ে গিয়েছিল মগজের অর্ধেকটা। দীর্ঘ আটবছর জীবন মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে শেষ পর্যন্ত হেরে গেলেন। মাত্র ২৮ বছর বয়সে মারা গেলেন অস্ট্রেলিয়ান রাগবি খেলোয়াড় স্যাম ব্যালার্ডে।

গত সোমবার সিডনির এক হাসপাতালে মৃত্যু হয় এই রাগবি খেলোয়াড়ের। আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ‘দ্যা সান’ তাদের এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, ২০১০ সালে বন্ধু-বান্ধবীদের সঙ্গে ঘুরতে বেরিয়েছিলেন স্যাম ব্যালার্ডে। সন্ধ্যায় বিয়ার পানের সময় ‘সত্য নাকি সাহস’ খেলায় অংশগ্রহণ করেন তিনি। নিজের পর্ব এলে ‘সাহস’ বেছে নেন এই রাগবি খেলোয়াড়। বন্ধুদের শর্ত ছিল তাকে শামুক খেতে হবে।

যেই বলা সেই কাজ। সাহসীকতা দেখিয়ে খোলসবিহীন শামুক বা স্লাগ খেয়ে নেন তিনি। কিছুক্ষণ পরেই অসুস্থ হয়ে পড়েন স্যাম। সেখান থেকে তাকে হাসপাতালে নিয়ে যান বন্ধুরা। সিডনির হাসপাতালের চিকিৎসকরা তাকে পরীক্ষা করে জানান, শামুকের গায়ে জড়িয়ে থাকা পরজীবি র্যা ট লাংওয়ার্মের বিষক্রিয়াতেই অসুস্থ হয়ে পড়েন স্যাম। ইঁদুরের বিষ্ঠায় জন্ম হয় এই পরজীবির।

সংক্রমণের দরুণ ৪২০ দিন কোমায় কাটান। একবছরের বেশি সময় হাসপাতালের থাকার পর বাসায় ফিরে আসেন স্যাম। পরে পক্ষাঘাতগ্রস্ত হয়ে পড়েন তিনি। দুই বছর পর তার মগজের অর্ধেক অংশ কাজ করা বন্ধ করে দেয়। দীর্ঘ আটবছর নিজের বাড়ি ও হাসপাতালের বিছানায় কাটিয়ে গত সোমবার পরপারে পাড়ি দেন এই রাগবি খেলোয়াড়।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে