sara

খাশোগি হত্যায় যুবরাজের ভূমিকা নিয়ে ট্রাম্পকে জিজ্ঞাসা!

  অনলাইন ডেস্ক

২১ নভেম্বর ২০১৮, ১২:৪৩ | আপডেট : ২১ নভেম্বর ২০১৮, ১৪:৫২ | অনলাইন সংস্করণ

সৌদি সাংবাদিক জামাল খাশোগি হত্যাকাণ্ডে যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের সম্পৃক্ততা জানতে চেয়ে প্রেসিডেন্টকে চিঠি পাঠানো হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার মার্কিন সিনেটের পাঠানো ওই চিঠিতে, খাশোগি হত্যাকাণ্ডে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে জিজ্ঞাসাসহ দ্বিতীয় তদন্তের প্রতিবেদন আগামী ১২০ দিনের মধ্যে পাঠানোর দাবি করা হয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বিবিসি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মার্কিন সিনেটের রিপাবলিকান ও ডেমোক্র্যাটিক সদস্যদের তরফ থেকে পাঠানো ওই চিঠিতে খাশোগি হত্যাকাণ্ডে দ্বিতীয়বারের মতো ট্রাম্পের কাছে তদন্তের দাবি করা হয়েছে।

মঙ্গলবারের মধ্যে খাশোগি হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের নাম প্রকাশ করার ঘোষণা করেছিলেন ট্রাম্প।  গত শনিবার প্রেসিডেন্ট জানান, মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ প্রধান জিনা হাসপেলের সঙ্গে খাশোগি হত্যাকাণ্ডে যুবরাজ সালমানের সম্পৃক্ততার প্রমাণ নিয়ে কথা হয়েছে। হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িতদের নামসহ একটি পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন মধ্যে প্রকাশ করা হবে বলেও তিনি জানান।

তবে এ বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনো মন্তব্য করেননি মার্কিন প্রেসিডেন্ট। আর এর পরই দেশটির সিনেটররা চিঠি পাঠান। মঙ্গলবার খাশোগির হত্যাকাণ্ড নিয়ে কোনো মন্তব্য না করলেও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সৌদি আরবের সঙ্গে সম্পর্ক অটুট থাকবে বলে ট্রাম্প সাংবাদিকদের জানান।

তিনি বলেন, ‘যাই হোক না কেন,আমরা সৌদি আরবের সঙ্গে সম্পর্ক বজায় রাখব। মর্মান্তিক ওই ঘটনার ব্যাপারে যুবরাজ সালমান হয়তো জানতেন, হয়তো বা জানতেন না।’

প্রেসিডেন্টের এই মন্তব্যের পর, পার্লামেন্টের রিপাবলিকান সিনেটর বব কর্কর ও ডেমোক্র্যাট সিনেটর বব মেনেন্ডেজ, ওই চিঠির কথা উল্লেখ করে একটি বিবৃতি দেন। বিবৃতিতে খাশোগি হত্যাকাণ্ডের দ্বিতীয় তদন্তে ট্রাম্পকে অব্যশই ক্রাউন প্রিন্স সালমানের ওপর বিশেষভাবে নজর দিতে বলা হয়েছে।  এ ছাড়া অন্য কোনো বিদেশি ব্যক্তি এই নির্বিচার হত্যা, নির্যাতন বা অন্যান্য গুরুতর আইন লঙ্ঘনের সঙ্গে জড়িত আছে কিনা সে বিষয়েও মার্কিন প্রেসিডেন্টকে একটি চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাতে বলেছেন।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে