যে ৬ ‘লাকি ফুড’ দিয়ে শুরু করবেন নতুন বছর

  অনলাইন ডেস্ক

৩১ ডিসেম্বর ২০১৮, ১২:৩৬ | আপডেট : ৩১ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৩:০২ | অনলাইন সংস্করণ

বছর শেষ হতে আর মাত্র একরাতের অপেক্ষা। শুরু হবে নতুন বছর। ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে বছর শেষের আমেজ। এ উপলক্ষে অনেকেই জমিয়ে তুলবে পিকনিক কেউবা হাউস পার্টি, সঙ্গে চলবে অনেক খাবারের আয়োজন। তবে বেশ কিছু ‘লাকি ফুড’ রয়েছে, যেগুলো নতুন বছরের শুরুতে খেলে আপনার জীবনে আসতে পারে সৌভাগ্য। জেনে নিই সেই ‘লাকি ফুড’গুলোর নাম...

মসুর ডাল

মসুর ডাল সমৃদ্ধির প্রতীক? কারণ রান্নার আগে মসুর ডাল আমরা ভিজিয়ে রাখি। তাতে মসুর ডালের দানাগুলো ফুলে ওঠে। তাই মনে করা হয়, বছর শুরুর দিনে মসুর ডাল ভিজিয়ে রেখে রান্না করলে আপনার ব্যাংক-ব্যালেন্স মসুরের ডালের মতো ফুলে ফেঁপে উঠবে।

কেক

কেক তো নতুন বছরে কমবেশি সকলেই খায়। গ্রীক পুরানমতে বছরের প্রথম কেকটা বাড়িতেই বানান এবং তা যেন গোলাকার হয়। এই গোল আকৃতির সঙ্গে কয়েনের তুলনা করা হয়। জন্মদিন বা যেকোনো শুভ অনুষ্ঠানে আমরা কেক কাটি। তা সৌভ্যাগের প্রতীক হিসেবে চিহ্নিত।

আঙুর

ইউরোপ এবং আমেরিকায় নতুন বছরে সকলেই গুণে গুণে ১২টি আঙুর খান। শুধু ইউরোপ নয়, এই ধারা স্পেনেও দেখা যায়। ঠিক ১২টা বাজার আগে সকলেই আঙুর খাওয়া শেষ করেন। তারা মনে করেন এই ১২টা আঙুর খাওয়ার ফলে ১২ মাস খুব ভালো কাটবে। বাধা বিপত্তি আসবে না।

নুডলস

নুডলস দিয়ে যাই বানানো হোক না কেন, সকলেই চেটে পুটে খান। জাপান এবং চীনে মনে করা হয় নুডলস খেলে আয়ু বাড়ে। দীর্ঘায়ুর প্রতীক হিসেবে নুডলস চিহ্নিত। সচরাচর আমরা নুডলসকে ভেঙে ডলে দিয়ে সেদ্ধ করি। কিন্তু এক্ষেত্রে বলা হচ্ছে, না ভেঙেই সেদ্ধ করার কথা। তারপর যেভাবে খুশি রান্না করা যাবে।

পর্ক

কিউবাতে পর্ক হচ্ছে সুখ-শান্তি-সমৃদ্ধির প্রতীক। বেকন এবং পর্কের যেকোনো আইটেম তারা খায়। এ ছাড়াও বেকড বা কুকিজ আকারেও বিক্রি হয়।

কমলালেবু

কমলালেবু নিয়ে নানা দেশে নানা মতবাদ প্রচলিত রয়েছে। সংস্কৃতির দিক দিয়ে তো বটেই এমনকি আকৃতি, বর্ণ, গন্ধের জন্য কমলালেবুকে দৃঢ়তার প্রতীক হিসেবে চিহ্নিত করা হয়।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে