রূপে নয়, গুণে মজুন

  অনলাইন ডেস্ক

১৬ মে ২০১৭, ১২:১২ | আপডেট : ১৬ মে ২০১৭, ১২:২৫ | অনলাইন সংস্করণ

জীবনে চলার পথে নানা ধর্ম-বর্ণের মানুষের সঙ্গেই আমাদের মিশতে হয়। এদের মধ্যে কারও কারও সঙ্গে আত্মার বন্ধন গড়ে উঠে। সুখে-দুঃখে সবসময় একে অপরের পাশে দাড়ায়। স্কুল, কলেজ কিংবা অফিস - যেখানেই হোক না কেন, সবখানে বন্ধুত্ব গড়ে উঠবেই। সত্যিই বন্ধু ছাড়া আমাদের একটা মুহূর্তও কাটে না। আসলে জীবনের প্রয়োজনেই মানুষ বন্ধু খুঁজে নেয়। তবে একথা ঠিক যে সব বন্ধুর গুরুত্ব সমান হয় না। জীবনের নানা বাকেঁ সবচেয়ে ভালো বন্ধুটির প্রভাবই বেশি থাকে। আমাদের সাফল্য ও ব্যর্থতার জন্য কিন্তু অনেকাংশেই দায়ী এই বন্ধু। অনেকেই আছেন যারা শুধু রূপ দেখেই বন্ধু নির্বাচন করেন। এটা কখনই ঠিক নয়। কারণ, দেখতে -শুনতে ভালো হলেই যে কেউ আপনার ভালো বন্ধু হতে পারবে এমনটি নয়। বরং দেখতে কুৎসিত কোন মানুষের মধ্যেও প্রকৃত বন্ধুর গুণ থাকতে পারে। তাই বন্ধু নির্বাচনে রূপ নয়, গুণের দিকে খেয়াল রাখুন।  

ভালো বন্ধুর কিছু গুণ-

ক্ষমাশীল

সম্পর্কে টানাপোড়েন, ভুল বোঝাবুঝি হবেই। এই সময়ও যদি বন্ধু আপনাকে ছেড়ে না যায় তাহলে বুঝবেন এটাই আপনার প্রকৃত বন্ধু।  

পছন্দকে গুরুত্ব দিবে

প্রত্যেকটি মানুষই আলাদা। সবচেয়ে ভালো বন্ধু বলেই সব বিষয়ে দুজনের পছন্দের মিল থাকবে- এমনটি নাও হতে পারে। তবে আপনার কোন পছন্দ থাকলে প্রকৃত বন্ধু সবসময় আপনার পাশে থাকবে; আপনাকে উৎসাহ জোগাবে। যদিও কাজটি তার ভালো লাগে না।

লক্ষ্যচ্যুতিতে কষ্ট পাবে

সবচেয়ে ভালো বন্ধুটি জীবনের কাঙ্খিত লক্ষ্যে পৌঁছুতে সাহস ও সমর্থন দেবে। জীবনে চলার পথে আপনি লক্ষ্যচ্যুত হলে বা মনোযোগ হারিয়ে ফেললে, সে-ই আপনার দৃঢ় প্রতিজ্ঞার কথা মনে করিয়ে দেবে। তারপরও যদি ব্যর্থ হন, সেটিকে পাত্তা না দিয়ে নতুন উদ্যমে কাজ শুরুর প্রেরণা জোগাবে।

কখনো ‘না’ বলবে না

আপনার যে কোনো সমস্যায় সাহায্যের প্রয়োজন হলে- নিশ্চিত থাকতে পারেন, আপনার সবচেয়ে ভালো বন্ধুটি কখনোই ‘না’ বলবে না। দিন-রাতের যে কোনো সময়ে আপনার একটি মাত্র ডাকেই ছুটে আসবে।

উদারতা

অর্থকষ্টে পড়লে অনেক সময়ই নিজের পরিবারকেও জানানো সম্ভব হয় না। এসব ক্ষেত্রে বন্ধুটিই হবে আপনার সবচেয়ে বড় সহায়। যখনই টাকা-পয়সার ঝামলোয় পড়বেন, তার কাছে হাত পাততে পারবেন নিঃসঙ্কোচে। সে আপনাকে কখনো ফিরিয়ে দেবে না।

মেধার সর্বোচ্চ বের করে আনবে

বন্ধুরা হলো হাতের আঙুলের মতো। আর সবচেয়ে ভালো বন্ধু হলো আপনার হাতের সবচেয়ে বিশ্বস্ত আঙুল। যার ওপর আপনি আস্থা রাখতে পারেন, নির্ভর করতে পারেন। বিনিময়ে বিভিন্ন কাজে আপনার মেধার সর্বোচ্চটুকু বের করে আনতে ভূমিকা রাখবে সে।

‘কাঠগড়ায়’ দাঁড় করাবে না

সবচেয়ে ভালো বন্ধুটি আপনাকে কখনোই জীবনের কাঠগড়ায় দাঁড় করাবে না। জীবনে হাতে-গোনা ৪-৫ জন মানুষ পাবেন, যারা সাফল্য-ব্যর্থতা দিয়ে আপনাকে বিচার করবে না। সবচেয়ে ভালো বন্ধুটি হবে তাদের একজন।

সব কথা শুনবে

আপনার গুরুত্বপূর্ণ-গুরুত্বহীন, সার্থক-নিরর্থক যত ধরনের কথা আছে, তার পুরাটাই সবচেয়ে ভালো বন্ধুটি শুনবে। কখনো বিরক্তি প্রকাশ করবে না। আপনিও মন খুলে বলতে পারবেন আপনার সব কথা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে