x

সদ্যপ্রাপ্ত

  •  বিপিএল এর পঞ্চম আসরের শিরোপা জিতল রংপুর রাইডার্স। মাশরাফির হাতে চতুর্থ ট্রফি

মায়ের গর্ভে ১৫ বছর থাকার পর জন্ম হল ‘স্টোন বেবি’র!

  অনলাইন ডেস্ক

০২ ডিসেম্বর ২০১৭, ১০:৪১ | অনলাইন সংস্করণ

এই পৃথিবীতে কতইনা অদ্ভুত ঘটনা ঘটে। ‘স্টোন বেবি’র জন্ম তেমনই একটি ঘটনা। ভারতে মহারাষ্ট্রের নাগপুরে 'স্টোন বেবি'র জন্মের ঘটনা প্রকাশ্যে আসায় এক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে৷ ১০ মাস ১০ দিন নয়, টানা ১৫বছর গর্ভাবস্থার পর জন্ম হয় এই ‘স্টোন বেবি’র!

জানা যায, ভারতের নাগপুরের এক নারীর বিয়ে হয়েছিল ১৯৯৯ সালে। ২০০০ সালে প্রথম সন্তান হয়। ২০০২ সালে ফের গর্ভবতী হন, তবে তিনি গর্ভপাত করিয়েছিলেন। কিন্তু সেই গর্ভপাত ঠিক না হওয়ায় কিছু অংশ রয়ে গিয়েছিল ওই নারীর পেটে, যা পরে ‘স্টোন বেবি’র আকার ধারণ করে।

‘স্টোন বেবি’র গর্ভধারন নিয়ে ওই নারী নিজেও কিছু জানতেন না৷ ১৫ বছর ধরে এই শিশু তাঁর গর্ভেই ছিল৷ তবে এর জন্য তার মাঝে মাঝে পেটে ব্যথা হত। তিনি তা অ্যাসিডিটি মনে করে অগ্রাহ্য করে গিয়েছিলেন বছরের পর বছর৷ একের পর এক ওষুধও খেয়েছেন তিনি কিন্তু কোন লাভ হয়নি৷ ব্যথা বৃদ্ধি পেতে থাকলে অবশেষে তিনি ভারতের নাগপুরেই চিকিৎসকের কাছে যান।

সিটি স্ক্যান করে জানতে পারেন পাথরের মতো কোন একটি বস্তু রয়েছে তাঁর পেটে৷ ল্যাপ্রোস্কপির পর বিষয়টি আরও স্পষ্ট হয়ে যায়৷ অপারেশনের মাধ্যমে পেট থেকে শিশুটিকে বের করা হয়, তবে সে আর রক্ত-মাংসের ছিল না, ছিল সম্পূর্ণ পাথরের৷ মেডিক্যাল টার্ম অনুযায়ী যাকে বলা হয়ে থাকে ‘স্টোন বেবি’৷
সূত্র: কলকাতা টোয়েন্টিফোর সেভেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে