ঠুনকো ব্যাটিংয়েও ১৪০ রানের টার্গেট

  ক্রীড়া ডেস্ক

০৮ মার্চ ২০১৮, ২১:৫১ | আপডেট : ০৮ মার্চ ২০১৮, ২১:৫৫ | অনলাইন সংস্করণ

শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠেয় নিদাহাস ট্রফির প্রথম ম্যাচে খেলেতে নেমে ভারতের বিপক্ষে নির্ধারিত ২০ ওভারে ১৩৯ রান তুলেছে বাংলাদেশ। জয়ের জন্য ভারতের দরকার ১৪০ রান।

আজ সন্ধায় কলোম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে ভারতের বোলারদের শর্ট বলের বিপরীতে তাসের ঘরের মত লুটিয়ে পড়ে বাংলাদেশের ব্যাটিং লাইনআপ। শুধু লিটন দাস এবং সাব্বির রহমান বাদে আর কেউই সেভাবে টিকে থাকতে পারেননি। তারপরেও ঠুনকো ব্যাটিংয়ে ১৪০ রানের টার্গেট দলের জন্য উপকারী। অন্তত বেশ কিছু ওভার খেলতে হবে ভারতের।

ব্যাটিংয়ে নেমে ঝড়ো শুরু করেন দুই ওপেনার তামিম ইকবাল এবং সৌম্য সরকার। কিন্তু ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারের চতুর্থ বলে জয়দেব উনাদকাতকে শর্ট ফাইন অঞ্চল দিয়ে উড়িয়ে মারতে গিয়ে যুজভেন্দ্র চাহালের তালুবন্দি হন এই ওপেনার। তামিম-সৌম্য জুটি থামে ২০ রানে এর আগে ১১৬ স্টাইক রেটে ১২ বলে ১৪ রান করেন সৌম্য।

একটু পরই শার্দুল ঠাকুরকে পরপর দুই বলে চার হাঁকিয়ে ফিরে যান তামিম ইকবাল। আরেক বাঁহাতি ওপেনার সৌম্য সরকারের মতো তিনিও ধরা পড়েন শর্ট ফাইন লেগে।

থিতু হওয়ার আগেই ফিরে যান মুশফিকুর রহিম। চারে নেমে এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ১৪ বলে করেন ১৮ রান। ক্রিজে এসে রানের জন্য ছটফট করা মাহমুদউল্লাহ বেশিক্ষণ টিকলেন না। দলকে বিপদে ফেলে ৮ বলে ১ রান করে ফিরে যান ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক।

ভালো খেলতে থাকা লিটন দাস ৩০ বলে তিনটি চারে ৩৪ রান করেন । ক্রিজে সেট হয়েও লেগ স্পিনার যুজবেন্দ্র চেহেলের ফ্লাইটেড ডেলিভারিকে বাজে শট খেলে আউট হন তিনি । এরপর সাব্বির রহমানের দিকে তাকিয়ে ছিল বাংলাদেশ। জয়দেব উনাদকাটের বলে কট বিহাইন্ড হয়ে ফিরে গেছেন সাব্বির। এর আগে ২৬ বলে ৩০ রান করা সাব্বির রিভিউ নেন। কিন্তু তাতে পাল্টায়নি সিদ্ধান্ত। এরপর সেভাবে আর কেউই রানের গতি পারেননি। মেহেদি হাসান মিরাজ ৩,তাসকিন আহমেদ ৮ এবং রুবেল হোসেন শূণ্য রান করেন।

পুরো ম্যাচজুড়েই ক্যাচ মিসের মহড়া দেখায় ভারত। এক সুরেশ রায়নাই ফেলেছেন দুই দুইটি ক্যাচ। তা না হলে বাংলাদেশ ম্যাচ শেষ হয়ে যেত অনেক আগেই।

আজ পাঁচ বিশেষজ্ঞ বোলার ও ছয় ব্যাটসম্যান নিয়ে নিজেদের প্রথম ম্যাচের একাদশ সাজিয়েছে বাংলাদেশ। পেস আক্রমণে মুস্তাফিজুর রহমানের সঙ্গী রুবেল হোসেন ও তাসকিন আহমেদ। স্পিনে নাজমুল ইসলাম অপুর সঙ্গী মেহেদী হাসান মিরাজ।

 

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে