এভাবে টেস্ট ক্রিকেট খেলার কোন মানে নেই : মাহমুদুল্লাহ

  স্পোর্টস ডেস্ক

০৬ নভেম্বর ২০১৮, ১৬:২৯ | অনলাইন সংস্করণ

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে ব্যাটসম্যানদের চূড়ান্ত ব্যর্থতায় ঘরের মাটিতে ১৫২ রানে হারে বাংলাদেশ।  দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথমটিতে জিতে সিরিজে ১-০তে এগিয়ে যায় সফরকারীরা।  ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের কণ্ঠে ছিল ঘুরে দাঁড়ানোর প্রত্যয়।

সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘আমাদের এটা খুব ভালোভাবে চিন্তা করতে হবে। কারণ এভাবে ব্যাট করতে থাকলে মনে হয় না আমরা টেস্ট ক্রিকেটে কোন অবস্থানে থাকব। এটা আমাদের ভাবমূর্তির বিষয়। আমাদের অবশ্যই শক্তভাবে ঘুরে দাঁড়াতে হবে। অন্যথায় এভাবে টেস্ট ক্রিকেট খেলার কোন মানে নেই।’

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংসে ১৮১ ও দ্বিতীয় ইনিংসে ১৬৯ রানে অলআউট হয়। দুই ইনিংসে সতাই ব্যাটিংয়ের কথা বলতে গিয়ে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ বলেন, ‘এমন ব্যাটিংয়ের ব্যাখ্যা দেয়া আসলে খুবই কঠিন। একটা জিনিস বলতে পারি, টেস্ট ক্রিকেট খেলতে যেই ধরনের ডিসিপ্লিন থাকা উচিত, আমার মনে হয় না আমরা সেই রকম দেখাতে পেরেছি। কারণ উইকেট বেশ ভাল ছিল, এমনকি আজকেও উইকেট ভাল ছিল। হয়তো আজকেও দুই একটি বল টার্ন করেছে। এছাড়া আমার কাছে ভালোই মনে হয়েছে। আমার মনে হয় ডিসিপ্লিনের ইস্যুটা আমাদের আরেকটু ভাল করে দেখতে হবে।’

বাংলাদেশের কোনো পরিকল্পনাই মাঠে ফলিত হয়নি। অধিনায়কের মতে, ‘পরিকল্পনা তো সফল হয়নি। কারণ গতকাল আমাদের লক্ষ্য যখন নির্ধারিত হয়, তখন আমরা মাঠে আলোচনা করেছিলাম আমরা ইতিবাচক থাকব। ম্যাচ জেতার জন্যই খেলব। কারণ উইকেট ভালোই ছিল। কোন রকম অজুহাত দেয়া উচিত হবে না এবং দেয়া ঠিকও না। আমরাই বাজে ব্যাটিং করেছি।’

সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে ৩ নভেম্বর শনিবার থেকে শুরু হয় দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্ট। প্রথম ইনিংসে আগে ব্যাট করে জিম্বাবুয়ে ১০ উইকেট হারিয়ে তোলে ২৮২ রান। বাংলাদেশ প্রথম ইনিংসে খেলতে নেমে ভয়াবহ ব্যাটিং ব্যর্থতায় ১৪৩ রানে অলআউট হয়ে যায়। জিম্বাবুয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে ১৩৯ রানের লিড নিয়ে খেলতে নেমে তাইজুলের অসাধারণ বোলিংয়ে ১৮১ রানে সবকটি উইকেট হারায়। বাংলাদেশের সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ৩২০ রানের। এ লক্ষ্যে খেলতে নেমে টাইগাররা গুটিয়ে যায় ১৬৯ রানে।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে