চলচ্চিত্র রিভিউ

মন কেড়েছে ‘সুলতানা বিবিয়ানা’

  বিনোদন সময় প্রতিবেদক

০৯ এপ্রিল ২০১৭, ০০:০০ | আপডেট : ০৯ এপ্রিল ২০১৭, ০০:০৯ | প্রিন্ট সংস্করণ

যে ছবি মুক্তি নিয়ে ছিল সংশয়, মুক্তির পর সেই ছবিই মন কেড়েছে সবার। গত সপ্তাহে ঢাকাসহ সারা দেশে মুক্তি পায় হিমেল আশরাফ পরিচালিত প্রথম ছবি ‘সুলতানা বিবিয়ানা’। আর মুক্তির পরই ছবিটি দেখতে সিনেমা হলে হুমড়ি খেয়ে পড়েছে দর্শক। দ্বিতীয় সপ্তাহে সারা দেশের ১৬টি সিনেমা হলে চলছে ছবিটি। ‘এই ছবি যদি দর্শক না দেখে, তবে দেখবে কোন ছবি?’ এমন প্রশ্ন করেছেন প্রথম সপ্তাহে যশোর মনিহার হলে ছবি দেখতে আসা তিন তরুণী। তাদের ভাষ্য- সিনেমা হলের পরিবেশ যদি একটু ভালো হতো, তবে এমন ভালো গল্পের ছবিগুলো দেখতে আমরা প্রতি সপ্তাহেই আসতাম। একই সিনেমা হলে ছবিটি দেখেছেন ‘সুলতানা বিবিয়ানা’র নায়িকা আঁচল। তিনি বলেন, ‘আমি টানা দুই শো দেখেছি। প্রতিটি শোয়ে দর্শক ভর্তি ছিল হল। তবে দর্শকদের জন্য আমার মায়া লেগেছে। কারণ মণিহারের মতো সিনেমা হলে দর্শকের জন্য ফ্যান নাই! দর্শক এত কষ্ট করে ছবি দেখে। তারপরও তারা খুশি। কারণ ছবির গল্পটি তাদের ভালো লেগেছে।’ ছবিতে আঁচলের বিপরীতে অভিনয় করেছেন বাপ্পী চৌধুরী। তিনি বলেন, ‘আমি ঢাকার অনেকগুলো হলে ছবিটি দেখেছি। প্রতিটি হলই পরিপূর্ণ ছিল দর্শকে। তাদের সবার একটাই কথা, এমন মৌলিক গল্পের ছবি নির্মাণ করা উচিত।’

ছবিতে বাপ্পীর অভিনয় বেশ প্রশংসিত হয়েছে। এতদিন যারা বলতেন তিনি অভিনয় পারেন না, তাদের একবার হলেও ছবিটি দেখা উচিত। শহীদুজ্জামান সেলিম এবং মামুনুর রশীদের মতো শক্তিমান অভিনেতাদের সঙ্গে সাবলীল অভিনয় সত্যিই প্রশংসার দাবিদার। আঁচলও চমৎকার অভিনয় করেছেন। গ্রামের মেয়ের চরিত্রে বেশ ভালোভাবেই উৎরে গেছেন তিনি। শহীদুজ্জামান সেলিম এবং মামুনুর রশীদকে নিয়ে আলাদা করে কিছুই বলার নেই। ভালো মানুষী আছে কিন্তু একই সঙ্গে নারীর দিকে লোভাতুর দৃষ্টি দিতেও যার ভুল হয় না এ রকম একটা চরিত্রে অসাধারণ অভিনয় করেছেন শহীদুজ্জামান সেলিম। আর বাবার চরিত্রে মামুনুর রশীদকে দেখে মনেই হয়নি তিনি অভিনয় করছেন। বাবারা তো এমনই হয়! অমিত হাসানকে নিয়ে বিশেষ কিছু বলার নাই। তার জায়গা থেকে তিনি ঠিক ছিলেন। তার ‘বিউটিফুল’ সংলাপটি দর্শক মহলে বেশ সাড়া ফেলেছে। বিশেষভাবে বলতে হচ্ছে লোকেশনের কথা। দারুণ কিছু লোকেশন এই ছবির অন্যতম আকর্ষণ। বাংলার সৌন্দর্য বেশ চমৎকার ফুটে উঠেছে ছবিতে। নদী, নদীর পাড়ে সুন্দর গ্রাম, ফুলের বাগান, সবুজ ক্ষেত এক কথায় চোখে আরাম দেওয়া গ্রামীণ পরিবেশ।

ভার্সেটাইল মিডিয়া প্রযোজিত ‘সুলতানা বিবিয়ানা’র চিত্রনাট্য লিখেছেন সমুদ্রে নিখোঁজ হওয়া নাট্যকার ফারুক হোসেন। ছবিটি তাকে উৎসর্গ করা হয়েছে। ছবির প্রযোজক আরশাদ আদনান বলেন, ‘ছবিটি এখন পর্যন্ত যারা দেখেছেন, তারা সবাই প্রশংসা করেছেন। কিন্তু শুধু প্রশংসা করলে হবে না। ছবিটি বন্ধু-আত্মীয়স্বজনদের নিয়ে হলে গিয়ে দেখতে হবে।’

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে