পায়ের গোড়ালির যতœ

  আঞ্জুমান আরা

১৫ নভেম্বর ২০১৭, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

শীত আসছে। শীতে ত্বকের যতœ আমরা যতটুকু গুরুত্ব দিয়ে করি ঠিক ততটুকুই উদাসীন থাকি পায়ের যতেœ। অথচ শীতে সব থেকে বেশি শুষ্ক হয় আমাদের পা। বিশেষ করে এ সময় পায়ের গোড়ালির চামড়া ফাটা, খসখসে হয়ে যাওয়াসহ বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। তাই শীতে যতœ প্রয়োজন পায়ের গোড়ালিরও।

‘শীতের আর্দ্রতা কম থাকায় ত্বকের শুষ্কতা বেড়ে যায়। সব থেকে বেশি শুষ্ক হয় আমাদের পা। যার দরুন পায়ের গোড়ালির চামড়া কুঁচকে যাওয়া, গোড়ালি ফাটা, রক্ত বের হওয়া, চুলকানিসহ বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। অবহেলা করলে এ সমস্যাগুলো প্রকট আকার ধারণ করতে পারে’Ñ বলে মনে করেন জারা’স বিউটি লাউঞ্জের কর্ণধার ও বিউটি এক্সপার্ট ফারহানা রুমি। তিনি আরও বলেন, ‘পায়ের গোড়ালির বিভিন্ন সমস্যা পায়ের সৌন্দর্য নষ্ট করে। এ জন্য এ সময় পায়ের গোড়ালির সঠিক পরিচর্যা প্রয়োজন। নিয়মিত যতেœর পাশাপাশি সপ্তাহে একদিন পেডিকিউর ও স্ক্রাব করতে হবে।’

বাইরে থেকে এসে যত দ্রুত সম্ভব পায়ের ধুলাবালি এবং ময়লা পরিষ্কার করুন। প্রতিদিন গোসলের আগে কুসুম গরম পানিতে এক টেবিল চামচ লবণ এবং এক চামচ শ্যাম্পু মিশিয়ে ১৫ মিনিট পানিতে পা ভিজিয়ে রাখুন। এর পর পিউমিস স্টোন দিয়ে ঘষে গোড়ালির মরা চামড়া তুলে ফেলুন। গোসল শেষে পায়ের গোড়ালিতে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন। মরা চামড়া দূর হওয়ায় পায়ের গোড়ালি মসৃণ হবে এবং পা ফাটার আশঙ্কা কম থাকবে। এ ক্ষেত্রে ভিটামিন ই-ক্যাপ ক্যাপসুল ভালো কাজ করে। ই-ক্যাপ ক্যাপসুল কেটে ওষুধটি পায়ের গোড়ালিতে ম্যাসাজ করুন। এতে পায়ের গোড়ালি কিংবা নখ হলদেটে হয়ে গেলেও চিন্তার কিছু নেই। দুই টেবিল চামচ বেকিং সোডার সঙ্গে এক টেবিল চামচ লেবুর রস মিশিয়ে পায়ের গোড়ালি এবং নখে ২ থেকে ৩ মিনিট লাগিয়ে রাখুন। হলদেটে দাগ চলে যাবে। বেশি পা ফাটা সমস্যা থাকলে গোসলের পর ময়েশ্চারাইজারের বদলে গ্লিসারিন এবং গোলাপজল মিশিয়ে পায়ের তালুতে লাগিয়ে রাখলে উপকার পাবেন।

পা ফাটা দূর করতে পাকা কলা খুবই কার্যকর। একটি পাকা কলা ও একটি অ্যাভোকাডোর ব্লেন্ড করে মিশিয়ে নিন। পায়ের গোড়ালিতে ১৫ মিনিট লাগিয়ে রেখে উষ্ণ পানিতে ধুয়ে ফেলুন। লবণ দিয়ে পা ভিজিয়ে রেখে এক টুকরো লেবু দিয়ে পায়ের গোড়ালি ঘষতে পারেন। লেবুর অ্যাসিটিক উপাদান গোড়ালির উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করবে।

শীতে পা ভালো রাখতে নিয়মিত পেডিকিউর এবং স্ক্রাব করুন। স্ক্রাব করতে একমুঠো চালের গুঁড়ো নিন। এতে ২-৩ টেবিল চামচ মধু, ২ টেবিল চামচ ভিনেগার, ১ টেবিল চামচ অলিভ অয়েল দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে পেস্ট করুন। ১০ মিনিট কুসুম গরম পানিতে পা ভিজিয়ে রেখে মিশ্রণটি দিয়ে পায়ের গোড়ালি ঘষে ধুয়ে ফেলুন। এবার পা মুছে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন।

অফিসে দিনে এক থেকে দুবার পায়ের গোড়ালিতে ভ্যাসলিন কিংবা ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন। ঝামেলা মনে হলে ব্যাগে চ্যাপস্টিক রেখে দিতে পারেন। গোড়ালিতে ঘষে নিলেই হবে। শীতে খালি পায়ে মেঝেতে হাঁটা উচিত নয়। এতে পায়ের গোড়ালি শক্ত হয়ে যায় এবং গোড়ালি ফাটে। শীতে সুতি মোজা ব্যবহার করুন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে