প্রত্যাশার নতুন বছর

  অনলাইন ডেস্ক

০৭ জানুয়ারি ২০১৭, ০০:০০ | আপডেট : ০৭ জানুয়ারি ২০১৭, ০০:২০ | প্রিন্ট সংস্করণ

শুরু হলো আরেকটি নতুন বছরের পথচলা। বিগত বছরটি নারীদের জন্য যেমন ছিল হত্যা, নির্যাতন আর নির্মমতার; তেমনি সফলতাও কম ছিল না। নতুন বছর নিয়ে কী ভাবছেন সমাজের বিশিষ্ট নারীরা, সেসব জানাচ্ছেন বিভিন্ন ক্ষেত্রে সফল কয়েকজন নারী। সাক্ষাৎকার নিয়েছেনÑ আঞ্জুমান আরা

দেশীয় পণ্য প্রসারে আরও বেশি কাজ করতে হবে- মনিরা এমদাদ, ব্যবস্থাপনা পরিচালক, টাঙ্গাইল শাড়ি কুটির

শুধ ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রিই নয়, সব ধরনের নারী উদ্যোক্তাদের জন্য গত বছরের সবচেয়ে ইতিবাচক দিক ছিলÑ একটি শান্তিপূর্ণ স্থিতিশীল বছর কাটিয়েছি আমরা। দেশের পরিস্থিতি ভালো থাকলে, সুস্থ কাজের পরিবেশ বজায় থাকে। পণ্যের প্রসার ও প্রচারে নানা ধরনের উদ্যোগ নেওয়ার সুযোগ থাকে। বিগত বছরে দেশীয় ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রিজ জামদানি, খাদি, মসলিনসহ ঐতিহ্যবাহী পোশাক নিয়ে অনেকগুলো প্রদর্শনী ও মেলার পাশাপাশি নানা ধরনের কাজ করেছে। ঐতিহ্যবাহী পোশাকগুলোকে নতুন রূপ দিয়েছে, যা ক্রেতাদের মধ্যে বেশ ভালো সাড়া ফেলেছে। এ ধারা নতুন বছরটিতেও অব্যাহত থাকবে বলে প্রত্যাশা করছি। ক্রেতারা বিশেষ করে একশ্রেণির তরুণ প্রজন্ম এখন দেশীয় ফ্যাশন ধারাকে সম্মান ও ভালবাসার সঙ্গে গ্রহণ করছে, যা আমাদের উদ্যোক্তাদের আশার আলো দেখাচ্ছে। তবে তরুণ প্রজন্মের মধ্যে এখনো এমন অনেকে আছেন, যারা অনেক কাপড়ের মধ্যে থেকে জামদানি খুঁজে বের করতে পারবে না। আমাদের দেশীয় ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রিজ যে এখন আর দশটা দেশের চেয়ে কোনো অংশেই কম নয়, তা অনেকেই বুঝতে চায় না। দেশীয় পণ্য প্রসারে আরও বেশি কাজ করতে হবে। চলতি বছরের শুরুতেই আমরা ঐতিহ্যবাহী দেশীয় পোশাক প্রসারে সম্মিলিতভাবে নানা ধরনের উদ্যোগ নিতে পারি। তবে এটা ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রির একার পক্ষে সম্ভব নয়। এ জন্য মিডিয়াকেও পাশে থাকতে হবে। শুধু দিবসভিত্তিক নয়, সারা বছরই দেশীয় ঐতিহ্য তুলে ধরতে হবে। নতুন বছরটিতে দেশীয় পোশাকের প্রতি তরুণ প্রজন্ম আরও বেশি আগ্রহী হয়ে উঠবেÑ সেটাই প্রত্যাশা করছি।

ভুক্তভোগীদের পাশে থাকতে আমরা প্রস্তুত রয়েছি- মাহমুদা আফরোজ লাকী, পিপিএম, অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার, গোয়েন্দা দক্ষিণ বিভাগ, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ

গত বছর নারী নির্যাতনের বড় ধরনের বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটলেও আমি মনে করি, সার্বিকভাবে নারী নির্যাতন এখন কিছুটা কম আছে। আমি বলছি না যে কমে গেছে, তবে মিডিয়াসহ নানা ধরনের প্রচার আর আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতার কারণে জনগণ এখন আগের চেয়ে অনেক বেশি সচেতন হয়েছে। আমরাও যথাসাধ্য চেষ্টা করে যাচ্ছি অপরাধীদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও বিচারের আওতায় আনতে। বিশেষ করে নারী নির্যাতনের ঘটনাগুলোয় আমরা এখন অনেক বেশি তৎপর রয়েছি। এ বিষয়গুলো নারী নির্যাতন কিছুটা হলেও কমাতে সহায়তা করছে। আমি মনে করি, জনগণের সচেতনতা আর আমাদের তৎপরতা একসঙ্গে থাকলে অপরাধ করে অপরাধীরা খুব বেশি সময় পর্দার আড়ালে থাকতে পারবে না; যা নতুন বছরটিতে নারীকে নিরাপদে রাখতে সহায়তা করবে। আমি আন্তরিকভাবে চাইছি যে, অপরাধ সৃষ্টি হতে পারে এ রকম যে কোনো ঘটনা আঁচ করতে পারলে তা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে জানিয়ে রাখুন। অপরাধীদের গ্রেপ্তার এবং ভুক্তভোগীদের পাশে থাকতে আমরা সার্বক্ষণিক প্রস্তুত রয়েছি। নতুন বছরটিতে জনগণকে আরও বেশি সেবা দিতে আমরা প্রস্তুত রয়েছি।

নারীদের নারী নির্যাতনের বিষয়ে সচেতন হতে হবে- ফরিদা আখতার, নারীনেত্রী

নতুন বছর সবার জন্য শুভ হয়ে আসুক, সেটাই কামনা করছি। তবে গত বছর নারী নির্যাতনের ভয়ঙ্কর ও আলোড়ন সৃষ্টিকারী যে ঘটনাগুলো আমরা দেখেছি, তাতে নতুন বছরটি নারীদের জন্য কতটুকু নিরাপদ হবে তা ভেবে দেখার বিষয়। আমি এ বিষয়ে খুব বেশি আশার আলো দেখছি না। গত বছর আমরা বিভিন্নভাবে বড় ধরনের নারী নির্যাতনের বেশ কিছু ঘটনা জেনেছি, কিন্তু যতটা জেনেছি তার চেয়ে বেশি অজানাই রয়ে গেছে। যেগুলো আলোড়ন তুলেছে, সেগুলোর সব অপরাধী কি গ্রেপ্তার হয়েছে। যারা গ্রেপ্তার হয়েছে তাদের সবার বিচারও এখনো শেষ হয়নি। এ বিষয়ে খুব বেশি পদক্ষেপ আমরা সরকারকেও নিতে দেখিনি। এ জন্য আমি সরকার কিংবা প্রশাসনের কাছে নতুন বছরে কোনো প্রত্যাশা করছি না। আমি প্রত্যাশা করছি নারীদের কাছেই। নারীদের নারী নির্যাতনের বিষয়ে সচেতন যেমন হতে হবে, তেমনি প্রতিবাদী হতে হবে। নারী নির্যাতন, খুন, ধর্ষণসহ নারীদের সঙ্গে সংঘটিত নানা ধরনের অপরাধে আমরা অধিকাংশ ক্ষেত্রে অন্যের প্রতিবাদের অপেক্ষায় বসে থাকি। গত বছরে আলোড়ন সৃষ্টিকারী ঘটনাগুলোতেও আমরা নারীদের তেমন কোনো প্রতিবাদ করতে দেখিনি, এর বিপক্ষে তেমন কোনো পদক্ষেপও চোখে পড়েনি। এটা দুঃখজনক। এটা না করে নারীদের সঙ্গে সংঘটিত অপরাধে নারীদেরই প্রতিবাদী হতে হবে। আর ব্যক্তিপর্যায়ের তা ছড়িয়ে যেতে হবে। নতুন বছরে নারীদের কাছে এটাই আমার প্রত্যাশা।

 

 

"

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে