টাইগারদের ঘুরে দাঁড়ানোর আশা

  ক্রীড়া প্রতিবেদক

১৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ঘরের মাঠে ত্রিদেশীয় ও টেস্ট সিরিজ হারের পর বাংলাদেশের সামনে এখন টি-টোয়েন্টি পরীক্ষা। এ পরীক্ষা কঠিন থেকে কঠিনতর হচ্ছে। কেননা বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি দলের সেরা খেলোয়াড় ও অধিনায়ক সাকিব খেলছেন না। আঙুলের চোট আগেই তাকে ছিটকে দিয়েছে। বিশ্ব মাতানো সাকিবের পর তামিম ইকবাল ও মুশফিকুর রহিমের চোটের কারণে তাদের খেলা নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে। বাঁ-হাতে তামিম আর হাতের কব্জিতে চোট পান মুশফিক। তাদের ইনজুরি ছোট হলেও আজ খেলতে পারবেন কিনা, তা একাদশ ঘোষণার সময়ই দেখা যাবে। অবশ্য ম্যাচের আগ পর্যন্ত তামিম-মুশফিকের জন্য অপেক্ষায় থাকবে বাংলাদেশ। তার পরও যদি খেলতে না পারেন তারা, সতর্ক হিসেবে স্কোয়াডে নেওয়া হয়েছে মোহাম্মদ মিঠুনকে। আগের দুই সিরিজে ব্যর্থ হলেও টি-টোয়েন্টি সিরিজকে ঘিরে স্বপ্ন বাংলাদেশের। এ ফরম্যাটের ক্রিকেটে ঘরের মাঠে নিজেদের এগিয়ে রাখতে চান ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। তিনি জানান, যদিও ওয়ানডে ও টেস্টে আমরা আশানুরূপ পারফরম্যান্স দেখাতে পারিনি, তার পরও আমি আশাবাদী যে ঘুরে দাঁড়াতে পারব।

আজ বিকাল ৫টায় মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে শুরু হবে ২ ম্যাচ সিরিজের প্রথম ম্যাচ।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের ধরন আলাদা। এ ফরম্যাটের ক্রিকেটে ওয়ানডের মতো ততটা আলো ছড়াতে পারছে না বাংলাদেশ। তবে ইতিবাচক থেকেই শ্রীলংকার বিপক্ষে ভয়-ডরহীন ক্রিকেট খেলতে চান টাইগাররা। বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি দলে নেওয়া হয়েছে এক ঝাঁক নবীন ক্রিকেটারকে। গত বিপিএলে দারুণ পারফরম্যান্সের কারণে সুযোগ মিলেছে তাদের। টেস্টের পর টি-টোয়েন্টিতেও নেতৃত্ব পাওয়া মাহমুদউল্লাহ জানালেন, নবীনদের ভালো করার দারুণ সুযোগ এটি। ভালো পারফরম করতে পারলে ভবিষ্যতে দলে জায়গা করে নিতে পারবেন তারা। অধিনায়ক হিসেবে দলের ক্রিকেটারদের অনুপ্রেরণা ও স্বাধীনতা দিয়েই সেরাটা বের করে নিতে চান মাহমুদউল্লাহ।

টি-টোয়েন্টির জন্য কেমন উইকেট হবে মিরপুরে? এ নিয়ে ভাবনা নেই বাংলাদেশ দলের। কেননা কোনো চাপ না নিয়ে ইতিবাচক খেলতেই মাঠে নামবে বাংলাদেশ। অন্যদিকে ত্রিদেশীয় ও টেস্টের পর টি-টোয়েন্টি সিরিজও নিজেদের করে নিতে চায় শ্রীলংকা। দলটির ব্যাটসম্যান উপুল থারাঙ্গা জানান, আগের দুই সিরিজের জয়ের ছন্দ ধরে রাখতে চান তারা। বাংলাদেশের উইকেট ও খেলোয়াড়দের সম্পর্কে ভালো করে জানেন শ্রীলংকার কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে। দলকে জয়ের ছন্দে রাখতে সব রকমের কৌশল আঁটতে চাইবেন বাংলাদেশের সাবেক এই কোচ। ধারণা করা হচ্ছে, বাংলাদেশ-শ্রীলংকার মধ্যে দারুণ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট হবে। এ পর্যন্ত শ্রীলংকা-বাংলাদেশ ৭টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছে। শ্রীলংকার জয় ৫টিতে এবং বাংলাদেশের জয় ২টি। সর্বশেষ গত বছর শ্রীলংকার মাটিতেই তাদের হারিয়েছিল বাংলাদেশ। মোট ৬৯টি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলে বাংলাদেশ জিতেছে ২১টিতে।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে