খালেদার আপিল রবিবার?

  আদালত প্রতিবেদক

১৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

অরফানেজ ট্রাস্টের দুর্নীতি মামলায় আগামী রবিবারের আগে হাইকোর্টে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার পক্ষে আপিল দাখিল করা সম্ভব হচ্ছে না। গতকাল বুধবার মামলাটির রায়ের অনুলিপি না পাওয়ায় এ আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

এর আগে মঙ্গলবার সাবেক এ প্রধানমন্ত্রীর আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া জানান, বুধবার দুপুরের পরে তারা রায়ের অনুলিপি পাবেন। কিন্তু বুধবার বেলা ৩টায় রায় প্রদানকারী আদালত থেকে জানানো হয়, ওইদিন তারা অনুলিপি দিতে পারছেন না। তবে বৃহস্পতিবার দেওয়া হবে বলে জানা গেছে। এ সম্পর্কে আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া জানান, বুধবার ৪টার মধ্যে অনুলিপি দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তুÍ ৩টার দিকে ফোন দিয়ে জানতে পারিÑ দিতে পারবে না। এখন কী আর করা! ভেবেছিলাম বুধবার অনুলিপি পেলে বৃহস্পতিবার আপিল ফাইল করব। এখন বৃহস্পতিবার অনুলিপি কখন পাই তার ওপর নির্ভর করছে আপিল দাখিল করা। যদি দুপুরের মধ্যে পাই, তা হলেও বৃহস্পতিবার আপিল ফাইল করার সুযোগ থাকবে। আর যদি পরে পাই, তবে আগামী রবিবার আপিল ফাইল করব।

এদিকে আদালত সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার রায়ের অনুলিপি পেলেও তা দুপুরের আগে সম্ভব হবে না। কারণ সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত বিচারক মামলা পরিচালনা করবেন। ওই সময় অনুলিপির কোনো কাজ করা সম্ভব হবে না।

এর আগে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্টের অর্থ আত্মসাতের দুর্নীতির মামলায় ঢাকার ৫ নম্বর বিশেষ জজ ড. মো. আখতারুজ্জামান গত ৮ ফেব্রুয়ারি রায় ঘোষণা করেন। রায়ে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার ৫ বছর কারাদ- প্রদান করে কারাগারে পাঠানো হয়। রায় ঘোষণার পর ওইদিনই খালেদা জিয়ার পক্ষে রায়ের অনুলিপি চেয়ে আবেদন করা হয়। এরপর গত ১২ ফেব্রুয়ারি অনুলিপির জন্য ৩ হাজার পৃষ্ঠা কোর্টফলিও স্ট্যাম্প আদালতে দাখিল করেন খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা।

মামলাটিতে খালেদা জিয়ার বড় ছেলে ও দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ ৫ আসামির ১০ বছর করে কারাদ- দেয়া হয়। এ ছাড়া রায়ে আসামিদের ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা ৮০ পয়সা জরিমানা করা হয়। দ-িত অপর চার আসামি হলেন সাবেক এমপি কাজী সালিমুল হক কামাল ওরফে ইকোনো কামাল, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেক সচিব ড. কামালউদ্দিন সিদ্দিকী ও সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ভাগ্নে মমিনুর রহমান। দ-িতদের মধ্যে তারেক রহমান, কামাল সিদ্দিকী ও মমিনুর রহমান পলাতক রয়েছেন।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে