এক পায়েই এভারেস্ট জয়

  আমাদের সময় ডেস্ক

০৯ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | আপডেট : ০৯ নভেম্বর ২০১৮, ০৯:১২ | প্রিন্ট সংস্করণ

২৩ বছর বয়সী অরুণিমা সিংহ। জাতীয় স্তরের ভলিবল খেলোয়াড় তিনি। হঠাৎ এক দুর্ঘটনায় বাম পা হারান অরুণিমা। তবে অস্ত্রোপচার করে নকল পা বসানোর পরেই তিনি এভারেস্ট জয়ের সংকল্প করেন। ২০১৩ সালের ২১ মে সেটি জয়ও করেন তিনি। গত মঙ্গলবার এ সাফল্যের জন্য অরুণিমাকে সম্মান জানিয়েছে ব্রিটেনের ইউনিভার্সিটি অব স্টাথক্লিড।

অরুণিমার লড়াইটা মোটেও সহজ ছিল না। ভারতের উত্তরপ্রদেশের অম্বেদকর নগরের এক মধ্যবিত্ত পরিবারে বেড়ে ওঠা তার। একদিন ট্রেনের কামরায় ছিনতাইবাজদের সামনে রুখে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। পরে দুষ্কৃতকারীরা তাকে ট্রেন থেকে ফেলে দেয়। উল্টো দিক থেকে আসা আরেকটি ট্রেনের চাকায় বাঁম পা কাটা পড়ে তার। অস্ত্রোপাচার করে নকল পা লাগান। এর পরই তার মাথায় আসে এভারেস্ট জয়ের বিষয়টি। তবে স্বজনদের জানালে তারা ভাবে, পা হারানোর মতো এত বড় ঘটনায় অরুণিমার মাথা বিগড়ে গেছে। অনেকে তখন পাগল ভাবতে থাকেন তাকে।

তবে ‘পাগল’ আখ্যা দিয়ে সবাই নিরুৎসাহিত করলে শেষে তিনি ভারতের প্রথম নারী এভারেস্টজয়ী বাচেন্দ্রী পালের কাছে যান। অরুণিমার কাছে তার এভারেস্ট জয়ের স্বপ্নের কথা শুনে বাচেন্দ্রী পাল বলেন, ‘তুমি যে এ অবস্থাতেই এভারেস্ট অভিযানের কথা ভেবেছ, এতেই তো জয় হয়ে গেছে। এখন শুধু অপেক্ষা সবাইকে জানানো।’ উত্তরকাশীতে পর্বতারোহনের প্রশিক্ষণ নিয়ে ২০১৩ সালের এপ্রিলে অভিযান শুরু হয় তার। দীর্ঘ লড়াইয়ের পর তিনি জয় করে ফেলেন এভারেস্ট। সেই সঙ্গে নিজের স্বপ্নকেও। নকল পা নিয়ে তিনিই বিশ্বের প্রথম এভারেস্ট বিজয়ী নারী।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে