sara

হিরো আলমের প্রত্যাশা

এরশাদ ও আমার জনপ্রিয়তা মিলে পাস করব

  নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া

১৪ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | আপডেট : ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ০৯:২২ | প্রিন্ট সংস্করণ

একের পর এক ঘটনায় একের পর এক সিঁড়ি টপকে তিনি উঠে এসেছেন পাদপ্রদীপের আলোয়। সংস্কৃতি অঙ্গনের প্রাচীর ছাড়িয়ে তার নাম এখন ছড়িয়ে পড়েছে দেশের মানুষের মুখে মুখে। তিনি আমাদের শোবিজ জগতের সুপরিচিত তরুণ ‘হিরো আলম’। সংস্কৃতির আকাশে ওড়ার পাশাপাশি তিনি এবার দৌড়াতে শুরু করেছেন রাজনীতির মাঠেও।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জাতীয় পার্টির হয়ে ‘লাঙল’ প্রতীকে লড়াইয়ে নামছেন হিরো আলম। তার হাতে গত সোমবার মনোনয়ন ফরম তুলে দেন জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের ও পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য চিত্রনায়ক মাসুদ পারভেজ সোহেল রানা।

তার প্রকৃত নাম আশরাফুল হোসেন আলম। তবে এ নামটি ঢাকা পড়ে গেছে ‘হিরো আলম’ নামটির ছায়ায়। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যাপক আলোচিত এ যুবক রাজনীতিতে নামছেন, এমন সংবাদে ফের বইছে ‘হিরো আলম ম্যানিয়া’। ভাইরাল হয়ে গেছে তার রাজনীতিতে নামার বিষয়টি।

বগুড়া-৪ (কাহালু-নন্দীগ্রাম) সংসদীয় আসনে ‘লাঙল’ প্রতীক নিয়েই একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নেবেন এ অভিনেতা। নির্বাচনে তরুণ ভোটারদের কাছে তিনি প্রাধান্য পাবেন বলে মনে করেন তার ভক্তরা।

গণমাধ্যমকর্মীদের নানা প্রশ্নের জবাবে হিরো আলম বলেন, প্রথম দিকে বগুড়া-৬ সদর আসনে নির্বাচন করার কথা ভেবেছিলাম; কিন্তু বগুড়া-৪ আসনে আমার গ্রহণযোগ্যতা বেশি। যে কারণে সেখান থেকেই নির্বাচন করব। হুসেইন মুহম্মদ এরশাদকে ভালো লাগে। জাতীয় পার্টি মানুষকে কথা দিলে, সেই কথা রাখে। এ জন্য লাঙলের প্রার্থী হতে চাই আমি।

তিনি আরও বলেন, সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের জনপ্রিয়তা এবং আমার জনপ্রিয়তা, এ দুয়ে মিলেই আমি নির্বাচিত হব। আগেও বলেছি, এখনো বলছি, চেহারা দেখে মানুষের বিচার করা যায় না। প্রতিভা আর ইচ্ছাশক্তিই সবকিছু। দুবার নিজ এলাকায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে অংশ নিয়েছি। সামান্য ভোটের ব্যবধানে পরাজিত হয়েছি। আমি মনে করি, এটা আমার বিজয়। এলাকার মানুষ আমাকে ভালোবাসে তার প্রমাণ পেয়েছি। একাদশ সংসদ নির্বাচনেও ভোটারদের ভালোবাসার প্রতিফলন ঘটাবে এবং আমাকে নির্বাচিত করবে বলেও আমার বিশ্বাস।

প্রসঙ্গত, সোশ্যাল মিডিয়া থেকে আকস্মিকভাবে আলোচনায় উঠে আসেন আশরাফুল হোসেন আলম ওরফে হিরো আলম। এর পর বগুড়া থেকে ঢাকায় এসে একের পর মিউজিক ভিডিওতে কাজ করেছেন। ‘মার ছক্কা’ নামের একটি চলচ্চিত্রেও অভিনয়ের সুযোগ পান তিনি। সবকিছুকে ছাড়িয়ে ঢালিউডে ডানা মেলেছেন আলোচিত এ তারকা। ২ ঘণ্টা ১০ মিনিটের ছবিতে নায়কের চরিত্রে অভিনয় করবেন তিনি। ‘বিজু দ্য হিরো’ নামের এ ছবিটির পরিচালক প্রভাত কুমার।

  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ

ই-পেপার

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে