চট্টগ্রাম বন্দরে লস্কর নিয়োগ

মন্ত্রীর বক্তব্যকে চ্যালেঞ্জ করে আন্দোলনের হুমকি

  চট্টগ্রাম ব্যুরো

২৩ নভেম্বর ২০১৭, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

চট্টগ্রাম বন্দরে লস্কর পদে চট্টগ্রাম থেকে ৪৫ জনকে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে বলে নৌপরিবহনমন্ত্রী যে তথ্য দিচ্ছেন, সেটি সঠিক নয়। মন্ত্রী মিথ্যা তথ্য দিয়ে ধোঁকা দিতে চাইছেন মন্তব্য করে কীভাবে, কোন কোটায় কতজন নিয়োগ দেওয়া হয়েছে, সেটি স্পষ্ট করার দাবি জানিয়েছে চট্টগ্রাম বন্দরের ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্ত ও স্থানীয় অধিবাসীদের অধিকার আদায় পরিষদ নামে একটি সংগঠন।

গতকাল বুধবার দুপুরে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের সভাপতি নূর মোহাম্মদ খান এ দাবি জানান।

লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, বন্দরের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের ২০ প্রার্থী লস্কর পদে আবেদন করেছিলেন। কিন্তু কারো চাকরি হয়নি। এর মধ্যে মুক্তিযোদ্ধা ও প্রতিবন্ধী কোটার প্রার্থীও ছিলেন। বন্দরের কারণে ক্ষতিগ্রস্তদের চাকরি না দিলে পাড়া-মহল্লায় সমাবেশ, থানা-ওয়ার্ডে জনসভা, বন্দর ভবন ঘেরাও ও হরতালের মতো কর্মসূচি দেওয়ার হুমকি দিয়ে অভিলম্বে লস্কর পদে নিয়োগ বাতিল করার দাবিও জানান তিনি।

বন্দরকে একটি মাফিয়া চক্র হাত করে নিয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, এটি ১৬ কোটি মানুষের বন্দর। এককভাবে কাউকে দেওয়া অন্যায়। বন্দরের শীর্ষ কর্মকর্তারা দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়ছেন। বন্দরে নিয়োগ কমিটিতে থাকা কর্মকর্তাদের সম্পদের হিসাব খুঁজে বের করতে হবে। বন্দর সম্প্রসারণের কারণে স্থানীয় বাসিন্দারা নিঃস্ব হয়েছেন। অন্যদিকে এসব এলাকায় ফ্ল্যাটবাড়ি ও একাধিক ফ্ল্যাটের ক্রেতা বন্দরের এক শ্রেণির কর্মকর্তা। এত টাকা তারা কোথায় পেলেন সেটি খতিয়ে দেখা প্রয়োজন।

সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মো. সিদ্দিকুল ইসলাম, দিদারুল হক, জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে